বাংলাদেশ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদরে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহত- ১, আহত- ১৭

আজ সোমবার ২৯শে জুলাই ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার দক্ষিন নাটাই ইউনিয়নের বিলকেন্দাই গ্রামে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে মলাই মিয়া(৪০) নামে একজন নিহত হয় ও ১৭ জন আহত হয় ।

গত কয়েক মাস যাবত দক্ষিন নাটাই ইউনিয়নের বিলকেন্দাই গ্রামে মাস্টার বাড়ি ও খন্দকার বাড়ির বিরোধ চলে আসছিল। যার সরুপ আজ দুপুরে মলাই মিয়ার বাড়িতে মাস্টার বাড়ির লোকজন বোমা, ককটেল, লামদা, ভল্লম নিয়ে হামলা করে আতংক তৈরি করেন। তারপর মলাই মিয়াকে একা পেয়ে ভল্লম দিয়ে মাথায় আঘাত করে। তারপর তাকে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে জরুরী বিভাগের কত্বব্যরত ডাঃ নাজমুল হক মলাই মিয়াকে আশংকাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যাল হাসপাতালে যায়তে বললে নরসিংদী যাওয়ার পথে মলাই মিয়া মৃত্যুরণ করেন।

এলাকাবাসী জানান- দীর্ঘদিন যাবত মাস্টার বাড়ি ও খন্দকার বাড়িক উভয়পক্ষই বিলকেন্দাই পূর্বপাড়ায় যাওয়া জায়গা-সম্পত্তি নিয়ে বিরোধীতা করে যাচ্ছিল । সে ধারাবাহিকতায় আজ দুপুরে দুইপক্ষ ঝগড়া লুটিয়া পড়েন৷ তাতে প্রায় ১৭ জন আহত হয়৷ আহতরা হলেন- বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রউফ(৭০), রুবেল(২৬), মানিক মিয়া(৩৫), মাসুদ মিয়া(৩৫), রাসেল(১৮), রাজিয়া(৩০), ইয়ামিন(২২), আয়াতুল্লাহ(২৭), মমিনুল হক(৪০), ওয়াসিম(২৫), ইয়ামিন মিয়া(১৭), জীবন(১৮), বারেক(৪০), সাইদ মিয়া(৬৫), সুমন মিয়া(২১), রাকিব মিয়া(১৮), নাজমা(২৮) প্রমুহ । 

বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রউফ(৭০) আশংকাজনক অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যালে পাঠান হয়েছে ও রাসেল ও মমিনুল হক দুইজনকে জেলা সদর হাসপাতালের সার্জারি বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে ।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ওসি মোঃ সেলিম উদ্দিন সাংবাদিকদের জানান- বিলকেন্দাই গ্রামে দুই গ্রুপের সংঘর্ষে মলাই মিয়া(৪০) মৃত্যু খুবই দুঃখজনক । কে বা কারা এই ঘটনার সাথে জড়িত তা বের করা হবে এবং তাদের বিরুদ্ধে আইনী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে । ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে ।